স্পর্শকাতর জায়গায় হাত, যুবককে জুতা দিয়ে পেটালেন নারী ।

0
22

মা’নিকগঞ্জের হরিরামপুরে একটি ব্যাংকের নি’রাপত্তাক’র্মীর বি’রুদ্ধে এক না’রী এনজিও কর্মীকে যৌ’ন নি’পী’ড়’নের অ’ভিযোগ উ’ঠেছে। ওই ঘ’টনা সা’লি’শের মাধ্যমে মি’মাং’সা হলেও অ’ভিযু’ক্ত নিরা’পত্তা ক’র্মীকে স’বার সামনে ওই না’রী নিজের পা’য়ের স্যা’ন্ডে’ল দি’য়ে পি’টি’য়ে’ছেন।

নি’রাপত্তাক’র্মী মো. দুলাল মিয়াকে ব্যাংকের দায়িত্ব থেকে অব্যা’হতি দেওয়া হয়েছে। তিনি জে’লার শিবালয় উ’পজে’লার শিবরামপুর গ্রা’মের জিলাল উদ্দিনের ছেলে। ভু’ক্তভো’গী না’রী জা’নান, তিনি একটি বেসরকারি সং’স্থায় (এনজিও) মাঠ প’র্যায়ে চাকরি করেন। গত ২৯ অক্টোবর বিকেলে ব্য’ক্তিগত কাজে বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংক হরিরামপুর উ’পজে’লা শাখায় যান।

কাজ শেষে বিকাল সাড়ে ৪ টার স’ময় সিঁ’ড়ি দিয়ে নামা’র স’ময় ব্যাংকের নি’রাপত্তাক’র্মী দুলাল মিয়া প’থরো’ধ করে জো’ড়পূ’র্বক তার শ’রী’রের স্প’র্শ’কা’তর জা’য়গায় হা’ন দে’ন ও যৌ’ন নি’পী’ড়’ন ক’রেন। প্রথমে বি’ষয়টি লো’ক ল’জ্জ্বার ভ’য়ে চে’পে গেলেও প’রে স্থানীয় এক গণমাধ্যমকর্মী ও উ’পজে’লা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মা’সুদুর রহমা’নকে জা’নান।

এ নিয়ে রোববার দুপুরে ব্যাংকের ব্য’বস্থাপক জামাল উদ্দিনের ক’ক্ষে সা’লি’শি বৈঠক হয়। বৈঠকে ভু’ল স্বী’কার করে নি’রাপত্তাক’র্মী দুলাল মিয়া তার পা ধ’রে মা’ফ চান। প’রে উপস্থিত স’বার সামনেই অ’ভিযু’ক্তকে পা’য়ের স্যা’ন্ডে’ল দি’য়ে পে’টা’নো হ’য়। উ’পজে’লা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মা’সুদুর রহমা’ন ব’লেন, ভু’ক্তভো’গী না’রী প’র্দানশী’ল। ব্যাংকের নি’রাপত্তাকর্মীকে চা’ক’রিচ্যুত করা ও মা’ফ চাওয়ায় ভু’ক্তভো’গী না’রী মা’ম’লা ক’রেননি।

ঘ’ট’নার স’ত্যতা স্বী’কার করে কৃষি ব্যাংক হরিরামপুর উ’পজে’লা শাখার ব্য’বস্থাপক মো. জামাল উদ্দিন ব’লেন, ঘ’ট’নাটি অত্যন্ত দুঃ’খ’জ’নক। এটি মেনে নেওয়া যায় না। ভু’ল স্বী’কার করে নি’রাপত্তাক’র্মী দুলাল মিয়া স’বার সামনে ওই না’রী এনজিও ক’র্মীর পা ধ’রে মা’ফ চেয়ে’ছেন। এস’ময় তাকে জু’তা’পে’টা ও মা’রধ’র করা হ’য়। সেই স’ঙ্গে দুলাল মিয়াকে ব্যাংকের নি’রাপ’ত্তার দায়িত্ব থেকে অ’ব্যাহ’তি দেওয়া হয়েছে।