অবশেষে মাস্ক পরলেন কিম জং উন

0
18

অবশেষে সার্জিক্যাল মাস্ক মুখে তুললেন উত্তর কোরিয়ার সর্বোচ্চ নেতা কিম জং উন। দেশে করোনা শনাক্তের পর তাকে দেখা গেছে ভিন্নরূপে। খবর রিপাবলিক ওয়ার্ল্ডের।

বৃহস্পতিবার (১২ মে) মহামারি মোকাবেলায় পদক্ষেপ গ্রহণে তিনি জরুরি বৈঠক ডাকেন। এ সময় তাকে মাস্ক পরে হল রুমে ঢুকতে দেখা যায়। যদিও কথা বলার সময় মাস্ক খুলে রাখেন কিম।

মহামারির ২ বছর পার হলেও এই প্রথম উত্তর কোরিয়ায় করোনা শনাক্তের খবর জানিয়েছে দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম কেসিএন। দেশটিতে করোনার ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত হয়েছে।এরপরই দেশজুড়ে আরোপ করা হয় কঠোর লকডাউন। অতি সংক্রামক ওমিক্রন ভাইরাসের একটি সাব-ভ্যারিয়েন্ট পিয়ংইয়ং শহরে শনাক্ত হয়েছে। তবে, দেশটির রাজধানীতে সংক্রমণের তথ্য নিশ্চিত করলেও ঠিক কতজন আক্রান্ত সেটি বলেনি গণমাধ্যম।

প্রসঙ্গত, মহামারির আড়াই বছরেও দেশটিতে করোনার কোনো তথ্য নেই বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার কাছে। এমনকি কোনো বাসিন্দা এখন পর্যন্ত ভ্যাকসিনও গ্রহণ করেননি। চীনের তৈরি সিনোভ্যাক এবং অক্সফোর্ডের অ্যাস্টাজেনেকার টিকা সহযোগিতার প্রস্তাবও ফিরিয়ে দিয়েছে দেশটি।

তবে, বিশ্বে করোনা মহামারি শনাক্তের পরই সীমান্ত সিলগালা করেছিলো উত্তর কোরিয়া। যার কারণে, খাবার ও নিত্যপণ্যের ব্যাপক সংকটে ভুগছে দেশটি। স্বাস্থ্যবিদরা বলছেন, বহু আগেই দেশটিতে ধরা পড়েছিল করোনা ভাইরাস। কিন্তু এতোদিন বিশ্ববাসীর কাছ থেকে সেটি গোপন করা হয়েছে। বিশ্বজুড়ে মহামারির দীর্ঘ সময়ে উত্তর কোরিয়া কখনও কারো করোনাভাইরাসে আক্রান্তের কথা স্বীকার করেনি। তবে বিশেষ করে প্রতিবেশি দক্ষিণ কোরিয়া এবং চীনে ব্যাপকভাবে অতি সংক্রামক ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট ছড়িয়ে পড়ার সময়েও উত্তর কোরিয়ায় একজনও আক্রান্ত না হওয়ার খবর নিয়ে সন্দেহ ছিল অনেকের মধ্যেই।